মাতালদের বাসে

এই যে নমস্কার!

অনেকদিন পর লিখতে বসলাম। জানি না এখনো কেউ আমার ব্লগ পড়ে কিনা। নিয়মিত পোস্ট করার প্রতিশ্রুতি দিয়ে বেমালুম বেপাত্তা হয়ে যাবার জন্যে ক্ষমা চাইছি। আসলে কি বলতো, একদম সময় পাই না। কখনো বা সময় পেলাম অল্প, কিন্তু মুড থাকে না। আর মুড না থাকলে কিছুই হয় না। এই সময়+মুড এর কম্বিনেশানটা পাওয়া খুব দুষ্কর হয়ে পড়ছে দিন দিন।

আজ লেখার একটু সময় পাওয়া গেছে। হালকা হালকা মুডও আছে। আজ একটু লিখি। আজ আবার বেনারসের কথা মনে পড়ছে। দুবছর ছিলাম বেনারসে।

একবার বারানসী থেকে মোগোলসরাই স্টেশান আসছিলাম। একাই আসছিলাম। ট্রেন ধরব বলে। রাতের ট্রেন। আমি বেরিয়েছি ৯টা মত হবে। অটো পাচ্ছি না। দাঁড়িয়ে আছি। দেখি একটা ছোটো মত বাস এসেছে।

More

Advertisements

গ্যাংটক ভ্রমণ

পাহাড়ে যাবো ! পাহাড়ে যাবো ! প্ল্যান করতে করতেই উৎসাহে ফুটছি । 

1বিজয়া দশমীর রাত্রে গ্যাংটক যাত্রা শুরু হলো ।  নিউ জলপাইগুড়ি থেকে গাড়ি ভাড়া করে সোজা পেলিং গেলাম। ড্রাইভার বেশ হাসি খুশি মানুষ। নাম পাসাং ভুটিয়া। রাস্তায় আবার ধস নেমে বন্ধ ছিল। ফলে ঘুরে যেতে হল এবং বেশ দেরি হল। এক্সট্রা টাকাও খরচ হল। ঝামেলা!

পাহাড়ি রাস্তা। উঁচু নিচু উঁচু নিচু। বেশ কিছু বাঁক বেশ খতরনাক। উল্টোদিক থেকে গাড়ি আসছে কিনা দেখাও যায় না।  আর এরা হর্ন খুব কম ব্যবহার করে। আর কম ব্যবহার করে প্লাস্টিক। দোকানপাটে জিনিসপত্র কিনলে কাপড়ের ব্যাগে দেয়। রাস্তাঘাটে প্লাস্টিক ছড়াচ্ছে দেখলাম টুরিস্টরাই। বলতে লজ্জা করছে, বেশী নোংরা করছে বাঙালিরাই।

More

বাংলায় বলবেন তো!

এক অবাঙালী ভদ্রলোক নতুন কোলকাতায় এসেছেন। কোলকাতায় আসার আগে শুদ্ধ বাংলা শিখে এসেছেন। কারণ রাস্তাঘাটে বাংলা না বললে অসুবিধা হতে পারে।

তো, তিনি যাদবপুরে এসে এক রিক্সাওয়ালাকে বললেন, “যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয় যাবো।”

রিক্সাওয়ালাঃ “কোথায় ???????”

অবাঙালী ভদ্রলোকঃ “যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়।”

রিক্সাওয়ালাঃ “সে আবার কোথায়??????? ওসব চিনি না।”

আরেক ভদ্রলোক রাস্তা দিয়ে যাচ্ছিলেন। তিনি বলে দিলেন, “আরে ওই ইউনিবারসিটি যাবে।”

রিক্সাওয়ালাঃ “ওঃ! ইউনিবারসিটি যাবেন! বাংলায় বলবেন তো!”

Say it in Bengali!

A non-bengali person came to Kolkata. He had learnt Bengali before coming.

He wants to go to Jadavpur University. So he hired a rickshaw and told the driver, “I want to go to Jadavpur Viswabidyaloy”  ( Bengali of University is Viswabidyaloy)

The rickshaw driver exclaimed, “Where?????”

He spoke again, “Jadavpur Viswabidyaloy”

The driver: “No such place around here”

A passer-by helped them. He told the driver, “He wants to go to eunibarsity” ( In Kolkata, common people speak University as eunibarsity in everyday language)

The driver : “Ohh!  you want to go eunibarsity! You should have said it in Bengali”

The problem is, though the non-bengali person said earlier in correct Bengali, the rickshaw driver, being illiterate probably, does not know whether University or eunibarsity is English, Bengali or whatever, and rather than “Viswabidyaloy”, he is more familiar to the local pronunciation of University as he comes across it in everyday life.

এসপ্ল্যানেড! এসপ্ল্যানেড! স্প্ল্যানেড নয়!

কোলকাতা মেট্রোতে যাওয়া-আসা করলে একটা জিনিস প্রায়ই শুনতে পাবে, “একটা স্প্ল্যানেড দিন তো” বা,  “ওই তো স্প্ল্যানেডে নেমে একটা কল করিস” —— এইরকম।

আমার আপত্তি এই “স্প্ল্যানেড” শব্দটাতে। কথাটাতো আসলে “এসপ্ল্যানেড”; তাহলে “স্প্ল্যানেড” বলা হবে কেন?
More

পর্তুগালের ঝুলন্ত ছাতা

9252001195_3e36d4305b_z

পর্তুগালের আগুয়েডা (Agueda) শহরে জুলাই মাসে রাস্তার ওপর রঙিন ছাতা ঝোলানো হয়। ওখানে এই সময় আগিটাগুয়েডা (Agitagueda) নামে একটা উৎসব হয়। সেই উৎসব পালন করতেই নাকি রাস্তার ওপরে ছাতা ঝোলানোর রীতি আছে। রংবেরঙের ছাতা সব। লাল, নীল্, হলুদ নানা রঙের ছাতা যখন পরপর সাজানো থাকে, দারুন দেখতে লাগে। আর রাস্তার ওপর ছায়াও হয়।

More

Image

কাল্টুদার কলিংবেল

কাল্টুদা নতুন কলিংবেল লাগিয়েছে।

যে সময়ের কথা বলছি, সে সময় সবার বাড়িতে কলিংবেল থাকত না। বড়লোকেরা শখ করে লাগাতো। কাল্টুদাও শখে একটা জোগাড় করেছে। সন্ধের সময় বাড়ি ফিরে যেন দরজা ধাক্কাতে না হয়। বেশ টিং-টং করে বাজবে।

মুশকিলটা হলো পাড়ার পাজি ছেলেগুলোর উত্পাতে। নতুন কলিংবেল পেয়ে বাজিয়ে দিয়েই ছুটে পালায়। দরজা খুলে দেখা যায় কেউ নেই, ভোঁ-ভাঁ। সারাদিন ধরে খালি টিং-টং, টিং-টং। রেগেমেগে কাল্টুদা কলিংবেলের প্লাগটা খুলে রাখল। কিন্তু তাহলে কাল্টুদা বাড়ি ফিরে তো টিং-টং বাজাতে পারবে না।

More

Aside

বেনারসে তিনদিন ─── বাঁদর, হট চেম্বার আর কৌতূহলী বুড়ো

গিছিলুম বেনারস।‌ ‌‌‌কেন গিছিলুম, কি কত্তে গিছিলুম বলছি।‌ ‌‌‌
আসলে , দুবছর বেনারস হিন্দু ইউনিভার্সিটিতে পড়ার পর হঠাৎ বোধি লাভ করার মতো মনে হোলো, আরেহ্ বেনারসে তো কিছুই দেখা হলো না! এমনি মন্দির-ফন্দির অনেক আছে।‌ ‌‌‌ ওসবে আমার ততো উৎসাহ নেই।‌ ‌‌‌‌ যেটা দেখতে চাই, সেটা হলো সূর্যোদয়।‌ ‌‌‌ গঙ্গার ওপর।‌ ‌‌‌
More

Image